জেনে নিন, কিভাবে হারানো যৌবনকে ফিরিয়ে দেবে রসুন

রসুন কেবল একটি মসলাই নয়, এর একাধিক ওষুধিগুণ রয়েছে, এ কথা কম বেশি সবারই জানা। আয়ুর্বেদ ও হেকিমিশাস্ত্রে অনেক আগে থেকেই ওষুধ হিসেবে ব্যবহৃত হয়ে আসছে। রসুনে জীবাণু ও কীটনাশক গুণও রয়েছে। মূলত মসলা হিসেবে ব্যবহৃত হলেও রসুনের পুষ্টিমূল্যও কম নয়। এছাড়াও ত্বকের ঔজ্জ্বল্য ধরে রাখার পাশাপাশি বয়স ধরে রাখার জন্যও রসুনের কোনো বিকল্প নেই। এক কোয়া রসুন হারানো যৌবনকে কীভাবে ফিরিয়ে দেবে তা জানিয়ে দিয়েছে ভারতীয় এক গণমাধ্যম। আসুন আমরা জেনে নিই কিভাবে কাজ

টানা ৮-৯ ঘণ্টা এসিতে থাকলে যে ক্ষতি হতে পারে

দিন যতই যাচ্ছে, ততই আমরা প্রযুক্তির ওপর নির্ভরশীল হয়ে পড়ছি। এখন শুধু অফিস-আদালতেই নয়, বাসাতেও এয়ারকন্ডিশন ছাড়া আমাদের চলেই না। দিনের পর দিন এর ওপর অভ্যস্ত হয় পড়ছি আমরা। এতে বিপদও বাড়ছে। কারণ টানা ৮-৯ ঘণ্টা এসিতে থাকলে স্বাস্থ্যঝুঁকি বেড়ে যায় বলেই জানিয়েছেন বিশেষজ্ঞরা। আসুন এবার জেনে নিন, দীর্ঘক্ষণ এসিতে থাকলে কোন কোন স্বাস্থ্যঝুঁকি বেড়ে যায়- শ্বাসতন্ত্রের সংক্রমণ যারা দিনের বেশিরভাগ সময় বা অন্তত টানা ৯-১০ ঘণ্টা শীতাতপ নিয়ন্ত্রিত ঘরে কাটান, তাদের মধ্যে শ্বাসতন্ত্রের নানা

সুস্থ থাকতে জেনে নিন খাবারে কতটুকু লবণ খাবেন?

আমাদের প্রতিদিনের খাবার তালিকায় লবণ খেয়ে থাকি। লবণ ছাড়া আমাদের একদমই চলা দায়। অনেকেই জানি যে, অতিরিক্ত মাত্রায় লবণ খেলে বাড়ে রক্তচাপ। এ ছাড়া একাধিক স্বাস্থ্য সমস্যা মাথাচাড়া দিতে পারে। বাড়ে হার্টঅ্যাটাক ও স্ট্রোকের ঝুঁকিও! এমনটিই জানাচ্ছে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা (হু)। বছরখানেক আগের একটি সমীক্ষায় জানা গেছে, প্রতি বছর ১৬ লাখের বেশি মানুষ মারা যায় শুধু শরীরে অতিরিক্ত সোডিয়াম জমা হওয়ার কারণে। আর শরীরে সোডিয়ামের জোগান বা ভারসাম্য বজায় রাখে লবণ। লবণ ২০১৭ সালে দিল্লিতে

আমরা ফল-সবজির আসলটাই ফেলে দিই?

ছাড়িয়ে নয়। ভক্ষণ করুন খোসা সমেত। কিছু ফল-সবজির খোসাতেই অর্ধেক পুষ্টিগুণ লুকিয়ে। জানালেন ডায়েটিশিয়ান বিশেষজ্ঞ। ফল কিংবা সবজি কিনে খাওয়ার আগে ভাল করে ধুয়ে, খোসা ছাড়িয়ে নেওয়াই নিরাপদ খাদ্যাভ্যাস মনে করেন অধিকাংশই। সবজির গায়ে লেগে থাকা কীটনাশক, ধুলো-ময়লা সবকিছু থেকে মুক্তি পেতে ছাল ছাড়িয়ে খাওয়াই ভাল। কিন্তু অন্যদিকে এর কুফলও রয়েছে। খোসা ছাড়িয়ে খেলে ফল বা সবজিতে যে মূল পোষণগুলি থাকে অর্থাৎ ভিটামিন, মিনারেল, ফাইবার ও অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট, তার সিংহভাগই খোসার সাথে বাদ চলে যায়। কাজেই

যে ৬ টি কারণে মেদ বাড়ে

পেটে মেদ জমে মানব দেহে সব থেকে তাড়াতাড়ি । পেটের বিভিন্ন অঙ্গের চারপাশে এই ‘ফ্যাট’ জমে, যার থেকে সৃষ্টি হয় নানা রোগের। হার্টের সমস্যা, ডায়াবেটিস, রক্তচাপের মতো অসুখের সূত্র পেটের এই মেদ থেকেই। যাকে সাধারণ ভাবে বলা হয় ‘বেলি ফ্যাট’। শুধুমাত্র খাওয়াদাওয়াই নয়, বেলি ফ্যাট হতে পারে আরও নানা কারণে। দেখে নেওয়া যাক এক ঝলকে— ১। সারা দিনে ঘুরতে ফিরতে, কাজের ফাঁকে কিছু-না-কিছু খাওয়া হয়েই যায়। কিন্তু এই খাবারগুলি মুখরোচক স্ন্যাক্স হলেই গন্ডোগোল। ফাস্ট ফুড

হৃদরোগ নিয়ন্ত্রণে মাত্র তিনটি খাবার

বর্তমানে হৃদরোগে আক্রান্তের সংখ্যা দিন দিন বাড়ছে। তবুও হৃদযন্ত্র কতটা বিপজ্জনক অবস্থায় আছে তা তিন মাস অন্তর খতিয়ে দেখার প্রচলন এখনও সব ঘরে আসেনি। চল নেই প্রয়োজনীয় চেক আপ কয়েক মাস অন্তর করিয়ে রাখার। এসব সচেতনতা যেমন নেই, তেমনই হৃদরোগ ঠেকাতে গ্রহণ করা যত্নেও থেকে যায় অনেক ঘাটতি। ভারতীয় হৃদরোগ বিশেষজ্ঞ প্রকাশ হাজরার মতে, খাবারের মধ্যে দিয়ে শরীরে যে প্রতিরোধ ক্ষমতা আমরা অর্জন করি, তাকে অবহেলা করা মোটেও বুদ্ধিমানের কাজ নয়। বিশেষ করে হার্টের যত্নে

ঘুমনোর আগে ১৫ মিনিটের স্কিন কেয়ার বিউটি টিপস

প্রত্যেকটি মহিলা চান চাঁদের মত উজ্জ্বল মুখ। কিন্তু যা অসম্ভব হয়ে উঠেছে পলিউশানের জন্য। বিশেষ করে পলিউশান মুখের স্বাভাবিক জেল্লা খারাপ করে দেয় নিমেষের মধ্যেই। তাই যত্ন নেওয়া জরুরি। কিন্তু হাতে সময় কোথায়? আছে। মাত্র ১৫ মিনিট দিন নিজেকে রাতে ঘুমনোর আগে। আর একমাসে দেখুন মুখের পার্থক্য। প্রতিদিন রাতে শোবার আগের ১৫ মিনিট অনুসরণ করুন এই বিউটি রুটিন। কোন অসম্ভব কিছু করতে বলছি না। সহজ ঘরোয়া জিনিস দিয়েই এই স্কিন কেয়ার রুটিন আপনারা ফলো করতে

তুলসী পাতার অজানা যত ঔষধি গুণ

হেমন্তেই শীতের আবেশ জানান দিচ্ছে, শীত আসবে। এই কখনো ঠাণ্ডা কখনো গরম আবহাওয়ায় অনেকেই অসুস্থ হচ্ছেন। এসময়ে ভরসা রাখুন প্রকৃতির উপহার ভিটামিন সি ও অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট সমৃদ্ধ তুলসীতে। জেনে নিন তুলসীর উপকারীতা : * এই সময়ে কাশি থেকে রক্ষা পেতে তুলসী পাতা ও আদার রসের সঙ্গে একটু মধু মিশিয়ে খেতে পারেন এতে উপকার পাবেন * সকালবেলা খালি পেটে তুলসী পাতা চিবিয়ে খেলে মুখের রুচি বাড়বে * জ্বরে তুলসী পাতার রস খেলে দ্রুত জ্বর ভাল হয়ে যায়

উজ্জ্বল ত্বক পেতে ঘরোয়া ফেসিয়াল

হাতে মাত্র কয়েকটা দিন, আর তারপরেই আসবে শীত। কেমন হয় যদি রঙিন আলোর মতো উজ্জ্বল হয়ে ওঠে আপনার ত্বক। খুব সহজ কিছু পদ্ধতি অবলম্বন করে, ঘরোয়া এই ফেসিয়ালগুলি করলেই এই শীতের আগে বাড়িতে বসেই পেয়ে যেতে পারেন উজ্জ্বল ও দীপ্তিময়ী ত্বক। মধু ও দারুচিনির ফেসিয়ালঃ খাঁটি মধুতে রয়েছে প্রাকৃতিক ময়েশ্চারাইজিং ফর্মুলা। পাশাপাশি দারচিনি কিন্তু অ্যান্টি অক্সিডেন্টের ভরপুর একটি উৎস। আর এই দুটি উপাদান যদি ত্বকে ব্যবহার করেন তাহলে একবার ভেবে দেখুন ত্বকের কতখানি পুষ্টি সম্ভব।

জেল্লাময় উজ্জ্বল ত্বক পেতে করনীয়

শীতে ত্বকের খেয়াল নিলে কিন্তু শুধু চলবে না। সারা বছর যদি ত্বক রাখতে চান জেল্লাদার তাহলে তার জন্য সামান্য হলেও রোজ কেয়ার নিতে শুরু করুন। আগেকার দিনে আমাদের মা দাদীদের স্কিন এমনিতেই সুন্দর থাকতো, আলাদা করে কিছু করতে হত না তাদের। কেন ভেবে দেখেছেন কখনও? শুধু টাটকা খাবার দাবার নয়। প্রকৃতি ছিল দূষণ মুক্ত। বাতাসে ছড়িয়ে থাকা বিষ আমাদের অজান্তেই আমাদের স্কিনের ক্ষতি করে অল্প বিস্তর রোজই। মাসে একবার পার্লার গিয়ে যারা ভাবছেন সব ঠিক